ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১২ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বসন্ত উৎসব ও ভালবাসা দিবসে সৈয়দপুরে ফুলের পসরা

নীলফামারী: বাংলা পঞ্জিকা অনুযায়ী পহেলা ফাল্গুন ও বিশ্ব ভালবাসা দিবস একই দিনে পড়েছে। ফলে উত্তরের জনপদ নীলফামারীর সৈয়দপুরে ফুলের পসরা সাজিয়ে বসেছেন দোকানিরা।দৃষ্টিনন্দন করে সাজানো হয়েছে ফুলের দোকান। দোকান থেকে বাহারি রঙের ফুল সাজিয়ে রাখা হয়েছে দোকানগুলোতে।

 

বসন্ত উৎস ও বিশ্ব ভালবাসা দিবসকে কেন্দ্র করে এখানে চলছে ফুলের জমজমাট ব্যবসা। এতে করে ফুলের দোকানগুলোতে বিক্রি বেড়েছে কয়েকগুণ। আর চাইনিজ রেস্তোরাঁগুলোতেও থাকছে বিশেষ আয়োজন।

শহরের চারটি ফুলের দোকানে স্থানীয় চাষ করা ফুলের পাশাপাশি যশোরের গদখালির ফুল নিয়ে আসার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়। এসব ফুল ইতোমধ্যে বাস, ট্রেন ও নিজস্ব পিকআপে ফুলের দোকানগুলোতে পৌঁছে গেছে। শহরের সৈয়দপুর প্লাজায় উৎসবকে ঘিরে নানা সাজে সাজানো হয়েছে। বেকারিগুলোতে দেশি-বিদেশি চকলেট, আইসক্রিমসহ নানা পদের খাবার পাওয়া যাচ্ছে।

শহরের শহীদ ডা. জিকরুল হক সড়কের পাপন ফুল বিতানের মালিক মবিনুল ইসলাম অ্যাপেলো জানান, গত কয়েক বছরের চেয়ে ফুলের চাহিদা বৃদ্ধি পেয়েছে। বসন্ত উৎসব ও বিশ্ব ভালবাসা দিবসে চড়া দামে ফুল কিনতে হয়। শহরে মুলত সাতটি দোকান থাকলেও উৎসবকে কেন্দ্র করে ২০টির মতো ফুলের দোকান বসানো হয়েছে। আমার দোকানে প্রায় এক লাখ টাকার ফুল বেচাকেনা হবে।

বিয়ে বাড়ি ধুম দোকানের মালিক মো. আরাফাত হোসেন  জানান, করোনার কারণে আগের মতো ফুলের বেচাকেনা নেই। আমরা গোলাপ চায়না প্রতিপিস ৩০টাকা, চন্দ্রমল্লিকা ১০টাকা, গ্লাডিওলাস ১৫টাকা করে বিক্রি করছি। তবুও বসন্ত ও ভালবাসা দিবসকে সামনে রেখে প্রায় ৫০ হাজার টাকার ফুল বিক্রি হবে আমার দোকানে।